'জীবনে কোনোদিন এত দামি খেজুর খাওয়ার সুযোগ হয়নি। এবার আল্লাহ সেই সুযোগ করে দিছে। চাল, ডাল ও আটাসহ যা সাহায্য পাছি (পেয়েছি) তা দিয়ে বাকি ১৩ রোজায় ভালো করে সেহরি আর ইফতার খাওয়া যাবি। আবার ঈদের দিনে খাওয়ার জন্য সেমাইও দিচে। সত্যিই ইঙ্কা (এমন) সাহায্য আজ পর্যন্ত কেউ করেনি।' উচ্ছ্বাসের সঙ্গে কথাগুলো বলছিলেন পঞ্চাশোর্ধ্ব সখিনা বেওয়া।

শীতকালে পিঠার দোকানে কাজ করা বগুড়া সদরের পালশা এলাকার সখিনা বেওয়া বছরের বাকি সময় ছাত্রাবাসে কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করতেন। কিন্তু এবার করোনাকালে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের সঙ্গে মেসগুলো বন্ধ হয়ে যাওয়ায় কর্মহীন হয়ে পড়েন সখিনা।

খাদ্য সহায়তা পেয়ে খুশি পত্রিকা বিক্রেতা শহরের মালতিনগর এলাকার দুলাল হোসেনও। তিনি বলেন, 'করোনাকালে পত্রিকা বিক্রি কমে যাওয়ায় আয়ও কমে গেছে। সেজন্য পরিবারের সদস্যদের নিয়ে খুব কষ্ট করে চলতে হচ্ছে। আজ যে সাহায্য পেয়েছি তা দিয়ে ঈদের দিন পর্যন্ত আর কোনো চিন্তা করতে হবে না।'

শনিবার বগুড়ায় সমকাল সুহৃদ সমাবেশ এবং আল-খায়ের ফাউন্ডেশনের বিতরণ করা ইফতার ও খাদ্য সহায়তা পেয়েছেন সকিনা-দুলালের মতো নানা শ্রেণি-পেশার ২০০ জন। জেলা প্রশাসক জিয়াউল হক এদিন দুপুর ১২টায় বগুড়া সেন্ট্রাল হাই স্কুল মাঠে সুবিধাবঞ্চিত মানুষের মধ্যে এই খাদ্যসামগ্রী বিতরণ করেন। পৃথক দুটি প্যাকেটে খাদ্যসামগ্রীর মধ্যে ছিল ১৫ কেজি চাল, দুই কেজি আলু, দুই লিটার সয়াবিন তেল, এক কেজি ডাল, এক কেজি চিনি, এক কেজি পেঁয়াজ, এক কেজি ছোলা, এক কেজি আটা, এক কেজি লবণ, ৫০০ গ্রাম গুঁড়া দুধ, ৫০০ গ্রাম খেজুর ও আধা কেজি সেমাই।

এ সময় জেলা প্রশাসক করোনাকালে দরিদ্র জনগোষ্ঠীর পাশে দাঁড়ানোর জন্য সমকাল এবং আল-খায়ের ফাউন্ডেশনকে ধন্যবাদ জানান। তিনি দরিদ্র মানুষকে সহায়তার জন্য সরকারের নেওয়া নানা উদ্যোগের কথা জানিয়ে বলেন, 'সরকারের পাশাপাশি সমাজের বিত্তবান মানুষকেও এগিয়ে আসতে হবে। কেউ যেন না খেয়ে থাকে, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।'

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন বগুড়া সেন্ট্রাল হাই স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি টি জামান নিকেতা, বগুড়া পৌরসভার প্যানেল মেয়র আলহাজ শেখ, ১০ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আরিফুর রহমান, বগুড়া সেন্ট্রাল হাই স্কুলের প্রধান শিক্ষক জাহাঙ্গীর আলম ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশনের বাংলাদেশ ফিল্ড অফিসের কান্ট্রি ডিরেক্টর তারেক মাহমুদ সজীব। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সমকালের বগুড়া ব্যুরোর প্রধান মোহন আখন্দ।

আরও উপস্থিত ছিলেন সমকাল সুহৃদ সমাবেশ বগুড়ার সভাপতি রাজেদুর রহমান রাজু, সাধারণ সম্পাদক অরূপ রতন শীল, উপদেষ্টা আসাদুল হক কাজল, সুহৃদ সদস্য মেহেরুন্নেছা ইতি, আকতারুজ্জামান সোহাগ, আব্দুল আউয়াল, সামিউল হাসিব সম্পদ ও সমকাল বগুড়া ব্যুরোর স্টাফ রিপোর্টার এস এম কাওসার।

মন্তব্য করুন