সিরাজগঞ্জে ধর্ষণে চতুর্থ শ্রেণির স্কুলছাত্রী ‘অন্তঃসত্ত্বা’, শিক্ষক আটক

প্রকাশ: ৩০ মে ২০২০   

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

সিরাজগঞ্জে চৌহালীর এনায়েতপুরে চতুর্থ শ্রেণির স্কুলছাত্রীকে নির্যাতন ও ধর্ষণের অভিযোগে নুরুজ্জামান নামে এক শিক্ষককে আটক করেছে পুলিশ। ওই শিক্ষার্থী বর্তমানে পাঁচ মাসের অন্তঃসত্ত্বা।

এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার স্কুলছাত্রীর মা এনায়েতপুর থানায় ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে শনিবার মামলা করেছেন। পরে সন্ধ্যায় অভিযুক্ত শিক্ষককে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।

এনায়েতপুর থানার ওসি মোল্লা মাসুদ পারভেজ জানান, স্বজনদের অভিযোগের প্রেক্ষিতে শিক্ষককে আটক করা হয়েছে। শিশুটি সন্তানসম্ভবা বলে তার মা-বাবা জানিয়েছেন। ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য রোববার শিশুটিকে সিভিল সার্জন অফিসে পাঠানো হবে। গত প্রায় ৬ মাস আগে এনায়েতপুরের মাঝগ্রাম সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ছুটির পর শিক্ষক স্কুলে আটকে রেখে শিশুটিকে ধর্ষণ করে বলে সে পুলিশকে জানিয়েছে।

ওসি বলেন, সন্তানসম্ভবা হবার বিষয়টি লম্পট শিক্ষককে জানালে শিশুটিকে উল্টো বরং ভয়ভীতি দেখানো হয়। পরে জানাজানি হলে বিষয়টি শেষ পর্যন্ত থানা পুলিশে গড়ায়।