কালের খেয়া

কালের খেয়া

পদাবলি

সূর্যফোটা ভোর

প্রকাশ: ১৭ জুলাই ২০২০     আপডেট: ১৭ জুলাই ২০২০

মতিন রায়হান

মৃত্যুর বহর দেখে মিশরের মমিগুলো খুব হাসে!

অন্ধকারে বেজে ওঠে যুদ্ধের দামামা! কারা যায়
রণসাজে পূর্ব থেকে পশ্চিমের পানে? ধু-ধু কুয়াশায়
ভেসে আসে দূরবর্তী তুষারের তীব্র বার্তারাশি;
তবু আলো দেখে নগরের আর্ত মানুষেরা; এই বুঝি
ভেসে গেল দুঃখ-যন্ত্রণার যতসব করুণ জঞ্জাল
শহরের পূতিগন্ধময় ড্রেন ভরে! সিটি কর্পোরেশনের
কর্মনিষ্ঠ কর্মীরাও ঝাড়ূ হাতে ধাওয়া করছে
যতসব অশুভ দুপুর! তবু মৃত্যু যেন ডানা নাড়ে
ঘরে ও বাইরে; তারপরও গভীর রাতের কালো মুছে
দিতে মাঠে আছে অগণন জীবনবাদী সৈনিক!
মৃত্যুকে পরোয়া না করে তারাই নিয়ে আসে প্রতিদিন
একেকটি সূর্যফোটা ভোর! তাই প্রোজ্জ্বল আলোয়
রৌদ্রস্নানে মাতে নগর ও গাঁয়ে-থাকা নিরীহ মানুষ
সবুজ চাদরে বোনা স্বপ্ন চোখে কী আনন্দে ভাসে

এসে যাবে আমাদের দিন! দেখো, ওই চরাচর হাসে!