চারমাত্রা

চারমাত্রা


পাগলির সঙ্গে যুগলবন্দি

প্রকাশ: ০৩ আগস্ট ২০১৯      

সৈয়দ আসাদুজ্জামান সুহান

চিঙ্কু সোনামণি,

আমার দৃষ্টিতে তুমি আস্ত একটা পাগলি। তোমার মতো এমন পাগলি দ্বিতীয় কাউকে দেখিনি। প্রতিটি মানুষের মাঝেই কমবেশি পাগলামি আছে। তবে যারা প্রেমে মজে, তাদের মাঝে পাগলামি স্বভাব থাকবেই। পাগলামি ছাড়া কখনও প্রেম করা যায় না। প্রেমের মজে গেলে পাগলামির পরিমাণ সবারই কমবেশি বৃদ্ধি পায়। এটা সবার ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য ও খুব স্বাভাবিক ব্যাপার। তবে তোমার মতো পাগলিকে নিয়ে আমি বেশ উদ্বিগ্ন থাকি। তোমার মতিগতি বোঝা ভারি মুশকিল। এই তো বেশ হাসিখুশি, প্রাণবন্ত আবার পরক্ষণেই রেগে মেগে অগ্নিকন্যা, একদম তুলকালাম কাণ্ড। তবে তুমি প্রথম দিকে মোটেও এমনটা ছিলে না। তখন তো একদম চুপচাপ, শান্তশিষ্ট, নম্র-ভদ্র স্বভাবের একটি লক্ষ্মী মেয়ে। তবে এটা বলছি না, এখন আর তেমনটি নও। শুধু আমার ক্ষেত্রেই তুমি পুরোপুরি বদলে গেছ। ভেবেছিলাম, বিয়ের পর সবকিছুই ঠিকঠাক হয়ে যাবে। কিন্তু আমাকে ভুল প্রমাণ করে বিয়ের পর তোমার পাগলামি যেন তিনগুণ বৃদ্ধি পেল। শিল্পীর মতোই বলতে হয়, 'তুমি আর নেই সেই তুমি'। বিয়ের পর তুমি পরিণত হলে একজন অতিমাত্রায় ঝগড়াটে গৃহিণী।

আমার সব কিছুতেই তোমার এখন রাজ্যের অভিযোগ। কে বিশ্বাস করবে বলো, এই আমার জন্যই একদিন পরিবারের সবার চোখ ফাঁকি দিয়ে নিউইয়র্ক থেকে পালিয়ে আমার মতো ছন্নছাড়ার কাছে এসেছিলে? তবে হ্যাঁ, তুমি যে আমাকে প্রচণ্ড রকম ভালোবাসো, এতে আমার কোনো সন্দেহ নেই। কথায় আছে, অতিরিক্ত কোনো কিছুই ভালো নয়। তার প্রমাণ তোমার অতিরিক্ত ভালোবাসা থেকেই প্রতিনিয়ত পাচ্ছি। তোমার অতিরিক্ত ভালোবাসার কারণেই কথায় কথায় আমার সঙ্গে ঝগড়ায় লেগে যাও। তারপর তুলকালাম কাণ্ড পাকিয়ে আমাকে ডিভোর্স দেওয়ার হুমকি দাও। যদিও তোমার এমন ভালোবাসার অত্যাচারে খুব অতিষ্ঠ হয়ে যাই। কিন্তু এখান থেকে আমার রেহাই পাওয়ার কোনো উপায় নেই। আমিও যে তোমাকে বড্ড বেশি ভালোবাসি। তাই সবকিছুই ধৈর্যের সঙ্গে সহ্য করে যেতে হয়। তুমিও আমাকে দিনের পর দিন সহ্য করে ভালোবাসার অটুট বন্ধন টিকিয়ে রেখেছ। আমাদের দু'জনেরই মৃত্যু ছাড়া কেউ কাউকে ছেড়ে যাওয়া অসম্ভব। মাঝেমধ্যেই মনে হয়, আমরা হয়তো দু'জন মিলে কবি জয় গোস্বামীর 'পাগলী' কবিতার দৃশ্যায়ন করছি।

প্রায়ই প্রশ্ন করো, 'তোমাকে কতটা ভালোবাসি?' তোমার প্রশ্ন শুনে আমি মুচকি মুচকি হাসি কিন্তু কখনও এর সঠিক উত্তর দিতে পারিনি। এটা নিয়ে তোমার কত ঝগড়া আর কত অভিমান! তুমি কেন যে বোঝ না, ভালোবাসা কখনও পরিমাপ কিংবা কোনো কিছুর সঙ্গেই তুলনা করা যায় না। তাই তো তোমার প্রশ্নের জবাবে বলি, ভালোবাসি... ভালোবাসি... ভালোবাসি...। এখন তুমি সাত সাগর তের নদী দূরে কিন্তু তোমার বসবাস আমার হৃদয়জুড়ে। তাই তো তোমাকে বলি, 'তুমি যখন হেঁটে যাও, আমি ছায়া হয়ে পাশে রই। তুমি যখন চলে যাও, আমি স্মৃতি হয়ে কথা কই। যুগে যুগে যুগান্তরে, আমরা যুগলবন্দি হয়ে রই।'

ইতি,তোমার চাতক পাখি।

মালিবাগ, ঢাকা