খানাখন্দে বেহাল সড়ক

ওসমানীনগর

প্রকাশ: ২৩ আগস্ট ২০১৯

আনোয়ার হোসেন আনা, ওসমানীনগর (সিলেট)

'ভোট আইলে হখল আমরার গেছে ভোটর লাগি আইন (ভোটের সময় সবাই আমাদের কাছে আসেন)। ভোটর বাদে কেউরে আর আর দেখি না। অত দিন ধরি আমরার (আমাদের) রাস্তাখান খারাপ, চলতাম পারি না। আমরার রাস্তাখান ঠিক করাইয়া দিবার লাগি কেউ নাই।' ক্ষুব্ধ আনসার আলী এভাবেই কথাগুলো বললেন। তিনি সিলেটের ওসমানীনগরের কোনাপাড়া গ্রামের বাসিন্দা। দীর্ঘদিন ধরে ওসমানীনগরের কাগজপুর-বড়হাজীপুর সড়কটির বেহাল দশা হলেও সংস্কার না করায় এলাকার সবাই তার মতোই ক্ষুব্ধ।

প্রায় এক যুগ আগে কাগজপুর-বড়হাজীপুর চার কিলোমিটার সড়ক পাকা করা হয়। কাগজপুর, ঈশাগ্রাই, পশ্চিম গ্রাম, মাইজগাঁও, কোনাপাড়া এবং হাজীপুর গ্রামের লোকজন এই সড়ক দিয়ে চলাচল করে। কিন্তু পাকা করার পর থেকে এখন পর্যন্ত সড়কটি সংস্কার না হওয়ায় কার্পেটিং ও বিটুমিন উঠে গিয়ে সৃষ্টি হয়েছে অসংখ্য খানাখন্দের। বর্ষায় সেখানে জমে থাকে বৃষ্টির পানি আর শীতে ধুলা। অতিরিক্ত ভেঙেচুরে যাওয়ায় দুর্ঘটনার ভয়ে এ সড়ক দিয়ে কোনো যানবাহন চলতে চায় না। তাই পাকা সড়ক থাকা সত্ত্বেও হেঁটে চলতে হয় স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ স্থানীয় জনসাধারণকে।

স্থানীয় কলেজশিক্ষার্থী কাওছার মাহমুদ বলেন, 'আমি মৌলভীবাজার সরকারি কলেজে পড়ি। ভাঙা সড়ক দিয়ে যানবাহন চলাচল না করায় প্রতিদিন তিন কিলোমিটার সড়ক হেঁটে মহাসড়কে উঠি। আবার তিন কিলোমিটার হেঁটে বাড়িতে ফিরি।'

কোনাপাড়া গ্রামের অটোরিকশাচালক সায়েদ মিয়া বলেন, অসংখ্য গর্ত থাকায় যানবাহন উল্টে যাওয়ার ভয় থাকে। তাই সবাই এই সড়কে গাড়ি চালাতে ভয় পান।

সাদীপুর ইউপি চেয়ারম্যান আবদুর রব বলেন, সড়কটি কোনোদিন সংস্কার হয়নি। যার কারণে যান চলাচলের একেবারে অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। এ ব্যাপারে উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী আবু সাঈদ বলেন, সড়কটি সংস্কারের জন্য প্রস্তাব ঊধ্বর্তন কর্তৃপক্ষের কাছে পাঠানো হয়েছে। আগামী অর্থবছরে সড়কে কাজ হওয়ার আশা ব্যক্ত করেন তিনি।