ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার গ্রুপে বাংলাদেশ

প্রকাশ: ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

স্পোর্টস ডেস্ক

সেমিফাইনালে আয়ারল্যান্ডকে হারিয়েই বিশ্বকাপের টিকিট নিশ্চিত করে ফেলেছিলেন বাংলাদেশের মেয়েরা। গতপরশু বাছাইপর্বের ফাইনালে ৭০ রানের বড় ব্যবধানে থাইল্যান্ডকে হারিয়ে শিরোপাও জিতে নেন সালমা-সানজিদারা। এ নিয়ে টানা চতুর্থবারের মতো টি২০ বিশ্বকাপে খেলবেন বাংলাদেশের মেয়েরা। ফাইনালের পরই চূড়ান্ত করা হয়েছে মেয়েদের ২০২০ টি২০ বিশ্বকাপের গ্রুপিং ও সূচি। 'এ' গ্রুপে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ দুই হট ফেভারিট অস্ট্রেলিয়া ও ভারত।

'এ' গ্রুপের অন্য দুটি দল নিউজিল্যান্ড ও শ্রীলংকা। 'বি' গ্রুপে রয়েছে ইংল্যান্ড, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, দক্ষিণ আফ্রিকা, পাকিস্তান ও থাইল্যান্ড। আগামী বছর ২১ ফেব্রুয়ারি সিডনিতে টুর্নামেন্টের পর্দা উঠবে। উদ্বোধনী দিনেই স্বাগতিক অস্ট্রেলিয়ার মুখোমুখি হবে ভারত। বাংলাদেশের প্রথম ম্যাচ ২৪ ফেব্রুয়ারি ভারতের বিপক্ষে। খেলা হবে পার্থের ওয়াকা গ্রাউন্ডে। দ্বিতীয় ম্যাচ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ক্যানবেরার মানুকা ওভালে। ২৯ ফেব্রুয়ারি মেলবোর্নের জাঙ্কশন ওভালে তৃতীয় ম্যাচে বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ নিউজিল্যান্ড। ২ মার্চ একই মাঠে শ্রীলংকার বিপক্ষে গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ।

চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পর বাংলাদেশ অধিনায়ক সালমা খাতুন বলেন, 'আগামী বছর ফেব্রুয়ারিতে অস্ট্রেলিয়ায় অনুষ্ঠেয় বিশ্বকাপ টি২০-তে জায়গা করে নিতে পেরে আমরা ভীষণ খুশি। বিশ্ব পর্যায়ে খেলতে পারলে বাংলাদেশের মেয়েদের ক্রিকেট অনেক দূর এগিয়ে যাবে। আশা করছি বাংলাদেশের মেয়েরা এ টুর্নামেন্ট দেখে ক্রিকেটের প্রতি আরও আগ্রহী হয়ে উঠবে।' স্কটল্যান্ডের ডান্ডিতে শনিবারের ফাইনালে বাংলাদেশের মেয়েদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি থাইল্যান্ড। প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে ৫ উইকেটে ১৩১ রানের বিশাল স্কোর দাঁড় করিয়েই আসল কাজটা সেরে ফেলেন তারা। এরপর শারমিন ও নাহিদার স্পিন বোলিং নির্ধারিত কুড়ি ওভারে ৭ উইকেটে মাত্র ৬০ রান তুলতে সমর্থ হয় থাইল্যান্ড। এ টুর্নামেন্টে বাংলাদেশের চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পেছনে ব্যাট হাতে বড় ভূমিকা রেখেছেন সানজিদা ইসলাম। ফাইনালে ৬০ বলে অপরাজিত ৭১ রানের ইনিংস খেলেন তিনি। টি২০ ফরম্যাটে এটি বাংলাদেশের সর্বোচ্চ ইনিংস। আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সেমিফাইনালেও চাপের মুখে অপরাজিত ৩২ রানের ইনিংস খেলে দলকে জিতিয়েছিলেন তিনি।