গাজী গ্রুপের বিপক্ষে লিস্ট 'এ' ক্যারিয়ারের সেরা বোলিং করেছেন মোহাম্মদ শহীদ। ডানহাতি এ পেসারের সঙ্গে দুই স্পিনার পারভেজ রসুল ও আসিফ হাসানও চমৎকার বোলিং করেন। তাদের সম্মিলিত আক্রমণে মাত্র ১৫২ রানে গুটিয়ে যায় গত আসরের শিরোপাজয়ী গাজী গ্রুপ ক্রিকেটার্স। জবাব দিতে নেমে অভিষেক মিত্র ও ওপেনার মোহাম্মদ নাইমের ব্যাটিং দৃঢ়তায় ১৬৩ বল হাতে রেখে ৮ উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় লিজেন্ডস অব রূপগঞ্জ। এ জয়ের ফলে ১৫ ম্যাচে ২০ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয় স্থানে আছে রূপগঞ্জ।

ফতুল্লায় টসে হেরে ব্যাট করতে নেমে গাজী গ্রুপের শুরুটা ভালো হয়নি। পেসার শহীদের তোপে ৩৮ রানে ৩ উইকেট হারিয়ে বসে তারা। এর মধ্যে দুই ওপেনার ইমরুল কায়েস ও মেহেদি হাসানের উইকেট দুটি তুলে নেন শহীদ। চতুর্থ উইকেটে অধিনায়ক জহুরুল ইসলাম ও জাকের আলী ৫১ রান যোগ করে বিপদ কিছুটা সামাল দিয়েছিলেন। কিন্তু এ দু'জনকে রূপগঞ্জের ভারতীয় স্পিনার পারভেজ রসুল তুলে নিলে গাজী গ্রুপের বড় সংগ্রহের আশা শেষ হয়ে যায়। এরপর নাইম হাসান দলের রান দেড়শ' পার করেন। ছোট টার্গেটের পিছু ধাওয়া করতে নেমে ওপেনার মোহাম্মদ নাইম ৩৪ বলে ৪৫ রান করেন। এরপর তৃতীয় উইকেটে অভিষেক ও মুশফিক অবিচ্ছিন্নভাবে ৭৮ রান তুলে দলের বড় জয় নিশ্চিত করেন।

মন্তব্য করুন