কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে জমি-সংক্রান্ত বিরোধের জেরে দু'পক্ষের সংঘর্ষে আটজন আহত হয়েছেন। আহতদের দৌলতপুর ও কুষ্টিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। রোববার সকালে উপজেলার প্রাগপুর ইউনিয়নের ময়রামপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জমি-সংক্রান্ত পূর্ববিরোধের জের ও বাঁশ কাটাকে কেন্দ্র করে রহিম মাস্টার ও মালেকপক্ষের লোকজনের মধ্যে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে সংঘর্ষ বেধে যায়। দেশি অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে দু'পক্ষের প্রায় ১৫-১৬ জন একে অপরের ওপর হামলা চালায়। এ সময় ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া চলতে থাকে। ঘণ্টাব্যাপী চলা সংঘর্ষে উভয়পক্ষের আটজন আহত হন। সংঘর্ষের খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। সংঘর্ষে আহত হন মালেক, কালু, রফিকুল, পলাশ, হিমেল, টুকু, নজরুল ইসলাম ও আজগর আলী। তাদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় কালু ও রফিকুলকে কুষ্টিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্য আহতরা দৌলতপুর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

দৌলতপুর থানার ওসি এসএম আরিফুর রহমান বলেন, জমি-সংক্রান্ত বিরোধ ও বাঁশ কাটাকে কেন্দ্র করে দু'পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধলে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে।

মন্তব্য করুন