ইয়াবা নিয়ে লঙ্কাকাণ্ড

প্রকাশ: ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯

হাটহাজারী (চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি

হাটহাজারীতে মুহাম্মদ এনাম নামে এক ব্যক্তিকে ৫২ পিস ইয়াবাসহ আটক দেখিয়ে মামলা দিয়েছে পুলিশ। গত ২৭ আগস্ট রাতে এ ঘটনা ঘটে। তবে মামলার প্রথম সাক্ষী মো. সফি চার-পাঁচ পিস ইয়াবাসহ এনামকে আটক হতে দেখলেও পুলিশ তাকে ৫২ পিস ইয়াবা দিয়ে আদালতে চালান দিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এনামের পরিবারের সঙ্গে প্রতিপক্ষের জায়গা নিয়ে বিরোধে পুলিশ তাকে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসিয়েছে বলে দাবি করছে তার পরিবার। এ ঘটনায় ৩ সেপ্টেম্বর জেলা পুলিশ সুপার বরাবর অভিযোগ করেছে এনামের পরিবার। এসআই আনিস বাদী হয়ে এনামের কাছ থেকে ৫২ পিস ইয়াবা উদ্ধারের মামলা দিয়ে তাকে জেলহাজতে পাঠান। এ ঘটনায় রোববার দুপুরে এনামের মুক্তির দাবিতে চট্টগ্রাম-খাগড়াছড়ি সড়কের চারিয়া নয়াহাট বাজারে মানববন্ধন করেছেন এলাকাবাসী। এনাম মির্জাপুর ইউনিয়নের চারিয়া শিকদারপাড়ার গোলাপুর রহমানের ছেলে। সে পেশায় অটোরিকশাচালক।

সাক্ষী মো. শফি সাংবাদিকদের বলেন, 'ঘটনার সময় এনামের অটোরিকশার যাত্রীদের বসার পেছনের অংশ থেকে পুলিশকে একটি সিগারেটের প্যাকেট উদ্ধার করতে দেখেছি। যেখানে চার-পাঁচটি ইয়াবা ছিল। কিন্তু পরে শুনলাম এনামকে ৫২ পিস ইয়াবা দিয়ে মামলা দিয়েছে পুলিশ।' গতকাল মানববন্ধন চলাকালে হাটহাজারী সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবদুল্লাহ আল মাসুম উপস্থিত হন। তিনি এ সময় সাংবাদিকদের বলেন, 'পুলিশ সুপারের কাছে এনামের পরিবারের অভিযোগ তদন্ত করা হবে।'