প্রতিপক্ষের হামলায় আওয়ামী লীগের ১০ জন আহত

প্রকাশ: ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি

লক্ষ্মীপুরের রামগতির বিবিরহাট বাজারে বিবিরহাট ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের এক সদস্যের দোকান দখলে নিতে আওয়ামী লীগের অপর এক সদস্যের নেতৃত্বে হামলার ঘটনা ঘটেছে। এ সময় হামলাকারীদের মারধরে আহত হয়েছেন ১০ জন। শুক্রবার রাত ৯টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ সময় হামলাকারীরা বিবিরহাট বাজারের নাফিজ স্টোরসহ দুটি দোকান ভাংচুর করে দোকানে থাকা ২০ লাখ টাকার মালপত্র লুটে নিয়ে যায়। আহতদের উদ্ধার করে রামগতি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্থানীয়রা ভর্তি করেন।

আহতদের মধ্যে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য নুর আলম জন্টু, ফারহান, রায়হান, মাঈনুদ্দিন, ইব্রাহিম, শাহদাত হোসেন ও আরমান হাসপাতালে চিকিৎধীন। বাকিরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন।

রামগতি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি ওই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য নুর আলম জন্টু জানান, শুক্রবার রাতে বিবিরহাট বাজারে তাদের নাফিজ স্টোরসহ তিনটি দোকান দখলের চেষ্টা করে ওই ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য মেজবাউল হক টুলুসহ নয়ন ডাকাত। এ সময় তারা বাধা দিতে গেলে নয়ন ডাকাতের লোকজন তাদের ওপর হামলা চালিয়ে লুটপাট করে। এ সময় তিনিসহ ১০ জন আহত হন। হামলাকারীরা দোকান ভাংচুর ও মালপত্র লুটে নিয়ে যায়।

অপরদিকে অভিযুক্ত মেজবাউল হক টুলু জানান, উপজেলা নির্বাচনে সমর্থন না দেওয়াকে কেন্দ্র করে নুর আলম জন্টুর সঙ্গে তার বিরোধের সূত্রপাত। ইউনিয়ন পর্যায়ে নতুন করে আওয়ামী লীগের সম্মেলন হচ্ছে। ওই সম্মেলনে যাতে তিনি কোনো পদ না পান সে জন্য মিথ্যা অপবাদ দিয়ে জন্টু তার বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছেন। হামলার ঘটনায় তিনি জড়িত নন বলে উল্লেখ করেন।

রামগতি থানার ওসি এটিএম আরিচুল হক জানান, রাতে রামগতির বিবিরহাট বাজারে দোকান দখলকে কেন্দ্র উত্তেজনা দেখা দেয়। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। তবে এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্তদের থানায় মামলা করার জন্য পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।