ঈদের ছুটিতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় সতর্ক পুলিশ-র‌্যাব

প্রকাশ: ২৩ মে ২০২০

সমকাল প্রতিবেদক

করোনাভাইরাসে সৃষ্ট সংকটে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর দায়িত্ব পালনের ধরনই যেন পরিবর্তন হয়ে যাচ্ছে। তবে ঈদের ছুটিতে ফাঁকা ঢাকার আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় সেই পুরোনো দায়িত্বে ফিরছে পুলিশ। অর্থাৎ করোনাভাইরাস মোকাবিলার নানা দায়িত্বের পাশাপাশি ঈদকেন্দ্রিক ছুটিতেও আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় নানা পরিকল্পনা নিয়ে মাঠে নেমেছে পুলিশ। পাশাপাশি র‌্যাবও রয়েছে সতর্ক অবস্থায়।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর বিভিন্ন কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ঈদ নিরাপত্তার বিষয়টি পরিকল্পনা চূড়ান্ত করা হয়েছে। এরই মধ্যে গোয়েন্দা সংস্থাগুলো তাদের কার্যক্রম শুরু করেছে। ঈদের ছুটিতে রাজধানীর প্রত্যেকটি সড়ক-অলিগলিতে থাকবে পুলিশের টহল ব্যবস্থা। র‌্যাবের ব্যাটালিয়নগুলোও নিজ নিজ এলাকায় টহল কার্যক্রম জোরদার করবে। পাশাপাশি ঢাকার সড়কে চেকপোস্টও বাড়ানো হবে। দেশের প্রত্যেকটি মহানগরীতেই নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার থাকবে। বাসাবাড়ি ছাড়াও বিভিন্ন আর্থিক প্রতিষ্ঠানের অফিসগুলো ঘিরেও থাকবে বিশেষ নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা।

ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) একাধিক কর্মকর্তা সমকালকে বলেছেন, ঈদের ছুটিতে সাধারণত ঢাকার বাসাবাড়ি ফাঁকা হয়ে যায়। অফিসগুলো দীর্ঘদিনের জন্য বন্ধ থাকে। এই সুযোগে চোর চক্র জানালার গ্রিল কেটে, দরজা ভেঙে বা নানা কৌশলে ভেতরে ঢুকে লুটপাট চালায়। কিন্তু এবার ভিন্ন পরিস্থিতিতে ঈদ আসছে। বেশিরভাগ বাসিন্দাই এবার ঘরে থাকছেন। এরপরও ঈদের ছুটিতে পুলিশ বাসাবাড়ির পাশাপাশি অফিসগুলোর দিকেও নজরদারি করবে। পোশাকে ছাড়াও সাদা পোশাকে সদস্যরা দায়িত্ব পালন করবে। অফিস, বাসাবাড়িসহ সড়ক বা গলিতে স্থাপিত সিসিটিভি ক্যামেরাগুলো সক্রিয় রয়েছে কিনা, তাও যাচাই করা হচ্ছে। চলমান পরিস্থিতিতে ব্যক্তিগত সুরক্ষাসামগ্রী (পিপিই) বা মাস্ক পরে অপরাধীরা যাতে সড়কে ছিনতাই বা দস্যুতা করতে না পারে সে ব্যবস্থাও নেওয়া হয়েছে।

ঢাকা মহানগর পুলিশের ডিসি (মিডিয়া) ওয়ালিদ হোসেন সমকালকে বলেন, চলমান পরিস্থিতিতে ডিএমপির প্রত্যেক সদস্য দায়িত্ব পালন করছেন। এরপরও ঈদের ছুটিতে পরিকল্পনা অনুযায়ী সবাই নিরাপত্তামূলক দায়িত্ব পালন করবেন; যা এরই মধ্যেই শুরু হয়ে গেছে। বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা ঈদের ছুটি পর্যন্ত থাকবে। নগরবাসীর নিরাপত্তায় ডিএমপি সতর্ক রয়েছে।