দিনাজপুরে জমি নিয়ে সংঘর্ষ পুলিশের গুলিতে নিহত ১

প্রকাশ: ১১ আগস্ট ২০১৯      

দিনাজপুর প্রতিনিধি

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে আদালতের রায়ে জমির মালিকানা বুঝিয়ে দিতে গিয়ে উভয়পক্ষের সংঘর্ষ চলাকালে পুলিশের গুলিতে একজন নিহত হয়েছেন। সংঘর্ষে আহত হয়েছেন কমপক্ষে ১৫ জন। তাদের বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহত লিটন মণ্ডল (৪০) নবাবগঞ্জ উপজেলার চককরিম গ্রামের আতিয়ার রহমানের ছেলে।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, প্রায় ৩০ বছর ধরে চককরিম গ্রামের ৮ বিঘা জমির মালিকানা নিয়ে একই এলাকার রফিক উদ্দিন ও লিটন মণ্ডলের পরিবারের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল। এই জমির মালিকানা নিয়ে দায়ের করা মামলায় সম্প্রতি রফিক উদ্দিনের পক্ষে রায় দেন আদালত।

গতকাল শনিবার দুপুরে আদালতের রায়ে জমির মালিকানা বুঝিয়ে দিতে যায় পুলিশ। এ সময় উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাধলে পুলিশ গুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এতে আহতদের হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে তাদের মধ্যে লিটন মণ্ডলকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

হাসপাতাল থেকে জানানো হয়েছে, নিহত লিটনের শরীরে গুলির চিহ্ন রয়েছে। দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন ছয়জন। তাদের মধ্যে গুলিবিদ্ধ রয়েছেন সাজু মণ্ডল, সাহানুর রহমান ও খোরশেদ আলম। আর মারামারিতে আহত হয়েছেন বিলকিস, মনোয়ারা ও মঞ্জুরুল ইসলাম।

এ ব্যাপারে নবাবগঞ্জ থানার ওসি সুব্রত সরকার বলেন, বিরোধে মানুষের জান বাঁচাতে ২০ রাউন্ড গুলি ছোড়া হয়েছে। এই সংঘর্ষের ঘটনায় আদালতের নাজির, জারিকারকসহ সাত পুলিশ সদস্য আহত হয়েছেন। তবে এ ব্যাপারে এখন পর্যন্ত কোনো মামলা করা হয়নি।