সিটি সেন্টার থেকে পড়ে তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু

সৎভাই আটক

প্রকাশ: ১১ আগস্ট ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

রাজধানীর মতিঝিলের বহুতল বাণিজ্যিক ভবন সিটি সেন্টার থেকে পড়ে তানজিলা আক্তার (১৮) নামে এক তরুণীর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। গতকাল শনিবার বিকেলে এ ঘটনা ঘটে। সে দুর্ঘটনাবশত পড়ে যায়, নাকি তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে কেউ ফেলে দিয়েছে তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। দক্ষিণ গোড়ানের আলী আহম্মেদ স্কুল অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্রী ছিল তানজিলা।

মতিঝিল থানার ওসি ওমর ফারুক সমকালকে বলেন, প্রকৃতপক্ষে কী ঘটেছে তা এখনও বলা যাচ্ছে না। ভবনটির ১৫ তলা থেকে তাকে কেউ ফেলে দিয়েছে কি-না তা জানার চেষ্টা চলছে। এর পেছনে অন্য কোনো কারণ থাকলে তাও তদন্তে বেরিয়ে আসবে। এ ঘটনায় মৃতের সৎভাই জোবায়ের আহমেদকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে পুলিশ।

পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্র জানায়, খিলগাঁওয়ের দক্ষিণ গোড়ান এলাকায় পরিবারের সঙ্গে থাকত তানজিলা। তার বাবা প্রয়াত তাহাজ উদ্দিন। বিকেল ৪টার দিকে তানজিলা সিটি সেন্টার থেকে নিচে পড়ে যায়। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশ। বিকেল ৫টার দিকে জরুরি বিভাগের চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মৃতের সৎভাই জোবায়ের আহমেদ জানান, সিটি সেন্টারের ১৫ তলায় একটি বেসরকারি ব্যাংকের নিরাপত্তাকর্মী হিসেবে কাজ করেন তিনি। কিছুদিন ধরেই তানজিলা সিটি সেন্টার ঘুরিয়ে দেখানোর আবদার করে আসছিল। গতকাল বিকেলে সে ভাইয়ের কার্যালয়ে চলে যায়। ৩৫ তলা ভবনটির ছাদে হেলিপ্যাড দেখার পর নামে ১৫ তলায়। তাকে সেখানে রেখে ওই ফ্লোরেই নিজ কর্মস্থলে প্রবেশ করেন জোবায়ের। এর পরপরই তানজিলা ভবন থেকে পড়ে যায়। সে কীভাবে পড়ে গেছে সেটা বুঝতে পারছেন না বলে দাবি করেন জোবায়ের।

সিটি সেন্টার কর্তৃপক্ষের এক দায়িত্বশীল কর্মকর্তা জানান, ভবনটির ইউনিট-বি-এর সিটি ব্যাংক ক্যাপিটাল অংশে এ ঘটনা ঘটে। মেয়েটি সেখানে কিছু সময় কাটায়। তারপর এ ঘটনা ঘটে। তবে সেখান থেকে নিচে পড়ার সুযোগ নেই বলেও তিনি দাবি করেন।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে মতিঝিল থানার ওসি বলেন, ঘটনার কোনো প্রত্যক্ষদর্শীকে পায়নি পুলিশ। তবে রাস্তায় পড়ার পর তার রক্তাক্ত নিথর দেহ দেখে পুলিশকে খবর দেয় পথচারীরা। ঘটনাস্থলে গিয়ে পুলিশের মনে হয়েছে, ১৫ তলা থেকে কারও পড়ে যাওয়ার সুযোগ আছে। মৃতের স্বজনরা অভিযোগ করলে এ ঘটনায় হত্যা মামলা নেওয়া হবে।