সন্দ্বীপ চ্যানেলে জাহাজ বিকল

পাঁচ ঘণ্টা পর তীরে ভিড়লেন ১৯৬ যাত্রী

প্রকাশ: ০৭ জুলাই ২০১৯      

চট্টগ্রাম ব্যুরো

জাহাজের ইঞ্জিন বিকল হয়ে পড়ায় সন্দ্বীপ চ্যানেলে পাঁচ ঘণ্টা ভাসলেন ১৯৬ যাত্রী। বিআইডব্লিউটিসির জাহাজ এমভি আবদুল মতিনে গতকাল শনিবার এ ঘটনা ঘটে। এ সময় যাত্রীদের মধ্যে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া ঘাট থেকে সকাল সাড়ে ১০টায় ছেড়ে আসা জাহাজটি সীতাকুণ্ডের কুমিরা ঘাটে দুপুর ১২টায় নোঙর করার  কথা ছিল। কিন্তু বিকল ইঞ্জিন মেরামত করে এটি ঘাটে আসে বিকেল সাড়ে ৩টায়।

সীতাকুণ্ডের ইউএনও মিল্টন রায় বলেন, বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে জাহাজ এমভি মতিন কুমিরা ঘাটে পৌঁছায়। সব যাত্রীকে নিরাপদে নামিয়ে আনা হয়েছে।

বিআইডব্লিউটিসি চট্টগ্রামের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার গোপাল চন্দ্র দাশ বলেন, জাহাজ ডানে-বামে ঘোরাতে ব্যবহূত হয় হাইড্রোলিক কুকান ইনডিকেটর। এটি ঠিকমতো কাজ না করায় জাহাজটি নির্ধারিত সময়ে গন্তব্যে আসতে পারেনি। ম্যানুয়েল পদ্ধতিতে পরে জাহাজটি ঘাটে আনা হয়।

ইঞ্জিন বিকল হওয়া এই জাহাজে শরীফুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তির মা-বাবা, ছোট বোন ও ভাগ্নি যাত্রী ছিলেন। তিনি জানান, ইঞ্জিন বিকল হয়ে জাহাজ সাগরে ভাসার খবর শুনে আতঙ্কিত হয়ে পড়েন তারা সবাই। জাহাজে থাকা সবাই কান্নাকাটি করতে থাকে। বিকেল সাড়ে ৩টার দিকে জাহাজটি ঘাটে এলে স্বজনদের নামিয়ে আনেন তারা।