আধুনিক গ্রীষ্ফ্মনিবাস

প্রকাশ: ১৯ এপ্রিল ২০১৯

সমকাল ডেস্ক

গ্রীষ্ফ্মকালীন ঘর বা সামার হাউসের ছাদে সুইমিং পুল প্রায় সবাই পছন্দ করেন। পাশাপাশি ঘরের মধ্য থেকেই আশপাশের সব দৃশ্য দেখার সুযোগ থাকলে তো কথাই নেই। আর এমন ঘর যদি হয় সাগর বা নদীর তীরে, তাহলে কেমন হবে? এমনই নতুন ধারণায় বাড়ি তৈরি করেছে গৃহনির্মাণ প্রতিষ্ঠান অ্যান্টি রিয়ালিটি।

৯১৪ বর্গফুটের সামার হাউসটি একটি একতলা ভবন। উপকূলীয় পাহাড়ের চূড়ায় নির্মিত বাড়িটির ছাদ দেখলে মনে

হবে এটি উল্টে রাখা হয়েছে। ওই ছাদ ব্যবহার করা হয় সুইমিং পুল হিসেবে। একই সঙ্গে ঘরটির কাচের দেয়াল দিয়ে চারপাশের সবকিছু দেখা যায়। তাই এই সামার হাউসটির ভেতরে থেকেই বাসিন্দারা বাইরে থাকার স্বাদ পাবেন।

নির্মাতা প্রতিষ্ঠান জানিয়েছে, এই ডিজাইনের বাড়ির একটি অন্যতম লক্ষ্য হলো আশপাশের দৃশ্য সবসময় উন্মুক্ত রাখা। এটি প্রকৃতির সঙ্গে সরাসরি যুক্ত থাকা ও প্রকৃতিকে উপভোগ করার সুযোগ করে দেয়। মৌসুমি বিনোদন ও ছুটি কাটানোর জন্য বিশেষভাবে এ বাড়ির ডিজাইন করা হয়েছে।

সুন্দর এ বাড়িটির দেয়াল কাচের হলেও গোপনীয়তা রক্ষার জন্য তিনটি কক্ষ রয়েছে। এর মধ্যে বাথরুম, রান্নাঘর ও শোবার ঘরের ব্যবস্থা রয়েছে। তবে কেউ চাইলে কক্ষগুলোও উন্মুক্ত রাখতে পারেন। কারণ এগুলো এমনভাবে নকশা করা যাতে কেউ চাইলেই দেয়াল সরিয়ে দিতে পারবেন। এমনকি চাইলে পুরো বাড়ির বাইরের দিকে অস্থায়ী দেয়াল স্থাপন করা যাবে। তাই বাড়ির মালিক ইচ্ছামতো এটিকে উন্মুক্ত বা আবদ্ধ বাড়ি হিসেবে ব্যবহার করতে পারবেন।

বাইরের দিকে মইয়ের সঙ্গে যুক্ত পুলটি একটি শিফোনিক ড্রেনের সঙ্গে যুক্ত। এর মাধ্যমে সহজেই পানির মাত্রা নিয়ন্ত্রণ করা যায়। ছাদ থেকে বাড়ির ভেতর দিয়ে নিচের একটি কক্ষের সঙ্গে নলযুক্ত করা রয়েছে। সেখান থেকেই পুলটিতে প্রয়োজনীয় পানি সরবরাহ করা হয়। সূত্র :মাই মডার্ন মেট ডটকম।