গাড়ি নির্মাণে জাপানের বিনিয়োগ চাইলেন শিল্পমন্ত্রী

জেট্রো প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠক

প্রকাশ: ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

দেশের গাড়ি নির্মাণ খাতে জাপানি উদ্যোক্তাদের যৌথ বিনিয়োগের আহ্বান জানিয়েছেন শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন। তিনি এ দেশ থেকে দক্ষ জনবল নিতেও ঢাকা সফররত জেট্রো প্রেসিডেন্টের সহায়তা চেয়েছেন।

জাপান এক্সটার্নাল ট্রেড অর্গানাইজেশনের (জেট্রো) প্রেসিডেন্ট ইয়াসুচি আকাহুসির সঙ্গে গতকাল রোববার শিল্প মন্ত্রণালয়ে নিজের কার্যালয়ে আলাপকালে এসব কথা বলেন শিল্পমন্ত্রী। তিনি আরও বলেন, জাপানের উদ্যোক্তারা এরই মধ্যে শিল্প মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে যৌথভাবে মোটরসাইকেল ও সার কারখানা স্থাপনসহ বিভিন্ন খাতে বিনিয়োগ করেছেন। দেশটির বিনিয়োগ সম্প্রসারণেও সরকার সহযোগিতা করবে বলে জেট্রোর প্রতিনিধি দলকে আশ্বস্ত করেন শিল্পমন্ত্রী। এ সময় মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ও জেট্রোর প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।

উভয় দেশের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগে সহায়তার বিভিন্ন বিষয় নিয়ে জেট্রোর প্রতিনিধি দলের সঙ্গে আলোচনা করেন নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন। এ সময় জেট্রোর প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশের সাম্প্রতিক আর্থসামাজিক অগ্রগতির প্রশংসা করে বলেন, তার দেশ শুরু থেকেই বাংলাদেশের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে কাজ করছে। তাদের বেশ কিছু কোম্পানি দীর্ঘদিন ধরে এ দেশে সুনামের সঙ্গে পণ্য বাজারজাত করছে। আগামীতেও বিনিয়োগ বাড়াতে অনেকে আগ্রহী জানিয়ে তিনি বিভিন্ন খাতে সুযোগ তৈরি করতে বর্তমান সরকারের সহযোগিতা চান।

শিল্পমন্ত্রী উভয় দেশের ঐতিহাসিক বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্কের কথা তুলে ধরে বলেন, বঙ্গবন্ধুর জাপান সফরের মধ্য দিয়ে দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ক সুদৃঢ় হয়েছিল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জাপান সফরে এ সম্পর্ক আরও বেড়েছে। গুণগত মানের কারণে জাপানি পণ্যের প্রতি এখানকার মানুষের আস্থা ব্যাপক উল্লেখ করে তিনি দেশটির উদ্যোক্তাদের এ দেশের গাড়ি নির্মাণ, জ্বালানি, মোটরসাইকেলসহ উৎপাদনশীল বিভিন্ন খাতে ও এসএমইতে বিনিয়োগে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। তিনি বলেন, নতুন বিনিয়োগের ক্ষেত্রে সরকার তাদের সহযোগিতা করবে।

শিল্পমন্ত্রী গাড়ি নির্মাণ খাতের পশ্চাৎ সংযোগ শিল্পের ক্ষুদ্র উদ্যোক্তা (ভেন্ডর) তৈরির জন্যও জাপানি উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগের পরামর্শ দেন। তিনি বাংলাদেশ থেকে জাপানের উদ্যোক্তাদের চাহিদা অনুযায়ী দক্ষ জনবল নিতে জেট্রোর প্রেসিডেন্টের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। এ জন্য তিনি জাপানি কারিগরি সহায়তায় এখানে একটি স্কিল ডেভেলপমেন্ট ইনস্টিটিউট স্থাপনের প্রস্তাব দেন।

নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন আরও বলেন, দেশে এখন রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা ও বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ বজায় রয়েছে। এ ছাড়া জাপানের উদ্যোক্তাদের প্রতি সরকারের মনোভাব সব সময় ইতিবাচক। এসব সুযোগ কাজে লাগাতে নতুন বিনিয়োগে আসার আহ্বান জানান তিনি।