অস্ট্রেলিয়া সফর নিয়ে যা বলল বিসিবি

প্রকাশ: ১৮ জানুয়ারি ২০২০     আপডেট: ১৮ জানুয়ারি ২০২০      

অনলাইন ডেস্ক

ছবি: ক্রিকবাজ

অস্ট্রেলিয়ায় ২০০৩ সালে সর্বশেষ টেস্ট সিরিজ খেলেছে বাংলাদেশ। সাকিব, তামিম, মুশফিকদের তাই অস্ট্রেলিয়ায় টেস্ট খেলার সুযোগ হয়নি। ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে দুই টেস্ট এবং তিন ম্যাচের ওয়ানডে খেলতে অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার কথা ছিল বাংলাদেশের। কিন্তু ওই সফর অর্থনৈতিক ক্ষতির কথা বলে বাতিল করে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া। তবে চলতি বছরের জুন-জুলাইয়ে দুটি টেস্ট খেলতে অস্ট্রেলিয়া যাওয়ার কথা আছে বাংলাদেশের।

টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের এফটিপি অনুযায়ী, নির্ধারিত সময়েই ওই সফর হবে বলে জানিয়েছে বিসিবি। বাংলাদেশ সফরে আসা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রধান নির্বাহী কেভিন রবার্টসনের সঙ্গে তাই ওই সফর নিয়ে কোন আলোচনা হয়নি বলে জানিয়েছেন বিসিবি প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দিন চৌধুরী। বরং বাংলাদেশের ক্রিকেটে অস্ট্রেলিয়ার সহযোগিতার বিষয় নিয়ে কথা বলেছেন তারা।

শুক্রবার বঙ্গবন্ধু বিপিএলের ফাইনাল দেখতে মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে উপস্থিত ছিলেন সিএ নির্বাহী রবার্টসন। তার এশিয়া একাদশ ও বিশ্ব একাদশের মধ্যকার টি-২০ ম্যাচ দেখার আমন্ত্রণ করে বিসিবি। কিন্তু তখন তিনি ব্যস্ত থাকবেন বলে বঙ্গবন্ধু বিপিএলের ফাইনাল দেখতে এলেন। আলোচনা সারলেন বিসিবির সঙ্গেও। কথা বললেন কিছু দ্বিপাক্ষিক বিষয় নিয়ে। তবে ওই আলোচনায় বাংলাদেশের অস্ট্রেলিয়া সফর নিয়ে কোন কথা ওঠেনি।

বিসিবির প্রধান নির্বাহী বলেন, 'কিছু দ্বিপাক্ষিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করতে এসেছিলেন তিনি। বাংলাদেশের অস্ট্রেলিয়া সফর এফটিপির অন্তর্ভুক্ত। ওই সিরিজ নিয়ে তাই বাড়তি আলাপের দরকার নেই।' তবে কী আলোচনা হলো তা নিয়ে এই বোর্ড কর্মকর্তা জানান, সম্প্রতি আমরা ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে বাংলাদেশের ক্রিকেট উন্নয়ন নিয়ে তিন বছরের একটি চুক্তি করেছি। ওই চুক্তি অনুযায়ী, আমরা অস্ট্রেলিয়ার কাছ থেকে আরও কিভাবে সহায়তা পেতে পারি সেটা নিয়েই আলোচনা হয়েছে।