যেসব ব্যক্তি অরণ্য কিংবা ঘন গাছপালা রয়েছে এমন প্রাকৃতিক পরিবেশের ৩০০ মিটারের মধ্যে বসবাস করেন তাদের ক্ষেত্রে স্ট্রোকের ঝুঁকি প্রায় ১৬ শতাংশ কম। স্পেনের একদল গবেষক এমনটাই জানিয়েছেন।


সায়ন্স নিউজে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, স্পেনের হাসপাতাল ডেল মার মেডিক্যাল রিসার্চ ইনস্টিটিউট, হাসপাতাল ডেল মার, কাতালোনিয়ান সরকারের স্বাস্থ্য বিভাগ এবং বার্সেলোনা ইনস্টিটিউট ফর গ্লোবাল হেলথ এর যৌথ গবেষণায় এই ফল পাওয়া গেছে। গবেষণাপত্রটি এনভায়রনমেন্ট ইন্টারন্যাশনাল জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে।  এত বলা হয়েছে, স্পেনের কাতালোনিয়ার গবেষকরা ২০১৬-১৭ সালের মধ্যে  ৩৫ লাখের বেশি মানুষের চিকিৎসা সংক্রান্ত নথিপত্রের ওপর সমীক্ষা চালিয়ে এই সিদ্বান্তে পৌঁছেছেন।

গবেষক দলের একজন ড. অ্যাভেলেনেদা বলেন, যেসব মানুষ তাদের বাসস্থানে বেশি মাত্রায় সবুজ দ্বারা পরিবেষ্টিত থাকে তাদের স্টোকের ঝুঁকি কম। তার  ভাষায়, সবুজ গাছপালা বিভিন্ন প্রক্রিয়ার মাধ্যমে মানুষের মধ্যে উপকারী প্রভাব ফেলে।

গবেষকরা বলছেন, প্রকৃতির পরশ নানা উপায়ে মানুষের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্য ভাল রাখতে সহায়তা করে। বিশেষ করে মানসিক স্বাস্থ্য ভাল রাখতে ও চাপ কমাতে চারপাশে গাছপালা থাকা খুবই জরুরি। পাশাপাশি আশেপাশে বাগান থাকলে মানুষের মধ্যে হাঁটাহাঁটির কিংবা শারীরিক কার্যক্রম করার উৎসাহও বেড়ে যায়, যা শরীর ভালো রাখে। পাশাপাশি, গাছপালা বেশি থাকলে পরিবেশ দূষণের মাত্রা কম থাকে। গবেষকদের দাবি, পরিবেশ দূষণের মাত্রা যত বাড়ে স্ট্রোকের আশঙ্কাও তত বাড়ে।