ভাতিজা সাদ এরশাদকে যুগ্ম মহাসচিব করলেন জিএম কাদের

প্রকাশ: ১৭ জানুয়ারি ২০২০      

 সমকাল প্রতিবেদক

জিএম কাদের ও রাহগীর আল মাহি সাদ এরশাদ -ফাইল ছবি

রাহগীর আল মাহি সাদ এরশাদকে দলে যুগ্ম মহাসচিব পদ দিয়েছেন জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান জিএম কাদের। অবশ্য তিন দিন আগেই জাপার প্রধান পৃষ্ঠপোষক রওশন এরশাদ তার ছেলে সাদকে দলে কো-চেয়ারম্যান পদ 'দিয়েছেন'। তবে রওশনের এ পদক্ষেপকে এখতিয়ারবহির্ভূত বলে আখ্যা দিয়েছেন জিএম কাদের।

গত ২৮ ডিসেম্বর নবম কাউন্সিলে জাপার চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন দলটির প্রয়াত প্রতিষ্ঠাতা হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের অনুজ জিএম কাদের। কাউন্সিলে তাকে দলের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের ক্ষমতা দেওয়া হয়। কো-চেয়ারম্যান ও প্রেসিডিয়াম সদস্য নিয়োগের পর শুক্রবার ১৪ জনকে যুগ্ম মহাসচিব করেন জিএম কাদের। এ তালিকায় রংপুর-৩ আসনের এমপি সাদ এরশাদের নাম রয়েছে ৯ নম্বরে। জাপার আগের কমিটিতেও যুগ্ম মহাসচিব ছিলেন তিনি।

সাদ ছাড়াও আরও ১৫ নেতাকে জাপায় 'পদ' দিয়েছিলেন বিরোধীদলীয় নেতা রওশন এরশাদ। যদিও দলীয় গঠনতন্ত্র অনুযায়ী কাউকে নিয়োগ দেওয়ার ক্ষমতা নেই তার।

মায়ের 'দেওয়া' কো-চেয়ারম্যান নাকি চাচার দেওয়া যুগ্ম মহাসচিব- কোন পদে আছেন সাদ? এ প্রশ্নে জাপা নেতারা বলেছেন, দলের চেয়ারম্যান ছাড়া আর কারও নিয়োগ দেওয়ার ক্ষমতা নেই। এ হিসেবে সাদ জাপার যুগ্ম মহাসচিব।

রওশন এরশাদপন্থিদের কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি এ ইস্যুতে। কথা বলা যায়নি সাদ এরশাদের সঙ্গেও।

জাপা মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গাঁ বলেছেন, রওশন এরশাদের সঙ্গে তার কথা হয়েছে। তিনি আশাবাদী, কমিটি গঠন নিয়ে আর কোনো সমস্যা হবে না। ভুল বোঝাবুঝির অবসান হবে।

যুগ্ম মহাসচিব ছাড়াও গতকাল জাপার কেন্দ্রীয় কমিটিতে আট উপদেষ্টা এবং ৩৭ জন ভাইস চেয়ারম্যানের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। জাপার বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, জিএম কাদের দলীয় গঠনতন্ত্রের ১২(৩) ধারা অনুযায়ী তাদের নিয়োগ দিয়েছেন। রওশন যে ১৬ নেতাকে পদ 'দিয়েছেন', তাদের প্রায় সবাইকে কমিটিতে রেখেছেন জিএম কাদের।

রওশন এরশাদের চিঠিতে রওশন আরা মান্নান এমপিকে জাপার প্রেসিডিয়াম সদস্য 'করা হয়েছিল'। জিএম কাদের তাকে উপদেষ্টা হিসেবে নিয়োগ দিয়েছেন। সাবেক এমপি মাহজাবিন মোর্শেদকেও প্রেসিডিয়াম সদস্য 'করেছিলেন' রওশন এরশাদ। তাকেও জাপার ভাইস চেয়ারম্যান পদ দিয়েছেন জিএম কাদের।