সেই দুই নারীর বিরুদ্ধে বিবারের মামলা

প্রকাশ: ২৭ জুন ২০২০   

বিনোদন ডেস্ক

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

কানাডীয় পপ তারকা জাস্টিন বিবার গান ছাড়াও ব্যক্তিগত জীবনের নানা ঘটনা নিয়ে প্রায়ই আলোচনায় আসেন। সম্প্রতি তার বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ উঠেছে। তবে সেই অভিযোগগুলো ‘ভিত্তিহীন’ দাবি করে আইনি পদক্ষেপ নিয়েছেন বিবার। খবর বিবিসির

তিনি বলেছেন, এই অভিযোগগুলোর কোনো সত্যতা নেই। ঘটনাগুলোতে তিনি জড়িত ছিলেন না, এই প্রমাণও তিনি দিতে পারবেন। তবে বিষয়টাকে হালকা ভাবে না নিয়ে অভিযোগকারী ওই দুই নারীর বিরুদ্ধে ১০ মিলিয়ন ডলার করে মোট ২০ মিলিয়ন ডলারের মানহানি মামলা করেছেন বিবার।

গত ২০ জুন সন্ধ্যায় সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে এক নারী ড্যানিয়েল নামের একটি অ্যাকাউন্ট থেকে দাবি করেন তাকে ২০১৪ সালে টেক্সাসের অস্টিনে নিজের পাঁচ তারা হোটেলে কক্ষে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন বিবার। সেখানে তাদেরকে যৌন হেনস্থা করেছিলেন তিনি। পরে টুইটটি মুছে ফেলেছেন সেই নারী। কিন্তু ততক্ষণে খবর ছড়িয়ে পড়ে এবং আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে খবর প্রকাশ হয়। শুরু হয় শোরগোল।

অপর নারী অভিযোগ করেছেন ২০১৫ সালে নিউ ইয়র্কে মেট গালা অনুষ্ঠানে অংশ নিতে গিয়েছিলেন বিবার। তখন সেই নারী হেনস্তার শিকার হন।

ধর্ষণের এসব অভিযোগ প্রসঙ্গে বিবার সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে লিখেছেন। তিনি জানিয়েছেন, ‘স্ত্রী ও দলের সদস্যদের সঙ্গে আলাপ করে ঠিক করেছি, এবার কিছু একটা করতেই হবে। ধর্ষণের অভিযোগকে হালকাভাবে নেওয়ার সুযোগ নেই।’

অভিযোগকারী নারীদের উল্লেখিত সময়ে বিবার যেসব জায়গায় অবস্থান করছিলেন, সেসব হোটেলের বুকিং অর্ডারের ই–মেইল, অনুষ্ঠানের ছবি তথ্যপ্রমাণ হিসেবে জমা দিয়ে ওই দুই নারীর বিরুদ্ধে মানহানির মামলা করেছেন বিবারের আইনজীবী। দিনের পর দিন এসব সহ্য করা তার পক্ষে সম্ভব নয়।