যশোরের ঝিকরগাছায় নৈশপ্রহরীকে হত্যা করে দুর্ধর্ষ ডাকাতি হয়েছে। রোববার ভোরে ঝিকরগাছা বাজারের রাজাপট্টিতে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত নৈশপ্রহরী আব্দুস সামাদ (৭০) উপজেলার বেড়েলা গ্রামের বাসিন্দা।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, ভোর ৪টার দিকে ঝিকরগাছা উপজেলা শহরের রাজাপট্টিতে পিকআপ নিয়ে হানা দেয় ৮ থেকে ১০ জনের একটি ডাকাত দল। তারা অস্ত্রের মুখে বাজারের চার নৈশপ্রহরীর হাত-পা ও মুখ গামছা ও স্কচটেপ দিয়ে বেঁধে ফেলে। নাক-মুখে স্কচটেপ পেঁচানোয় নৈশপ্রহরী আব্দুস সামাদ মারা যান। এরপর ডাকাত দল ঝিকরগাছা অটো ইলেকট্রিক্যাল ওয়ার্কশপের তালা ভেঙে অন্তত ২৫টি ব্যাটারি লুট করে নিয়ে যায়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে নিহত নৈশপ্রহরী আব্দুস সামাদের মরদেহ উদ্ধার করে ঝিকরগাছা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। মৃত আব্দুস সামাদের কপালে  আঘাতের চিহ্ন আছে। তবে শরীরের অন্য কোথাও আর কোনো আঘাতের চিহ্ন নেই।

ঝিকরগাছা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মেজবাহ উর রহমান জানিয়েছেন, ঝিকরগাছা বাজারের চার নৈশপ্রহরীকে বেঁধে রেখে একটি ব্যাটারির দোকানে ডাকাতি হয়েছে। এসময় এক নৈশপ্রহরীর মৃত্যু হয়। মার্কেটের একটি দোকানের সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করে জড়িতদের শনাক্ত করার চেষ্টা চলছে। এদিকে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য যশোর জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।