করোনায় বিশ্বে ১৫ সেকেন্ডে একজনের মৃত্যু

প্রকাশ: ০৫ আগস্ট ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

ছবি: রয়টার্স

ছবি: রয়টার্স

করোনাভাইরাসে বিশ্বজুড়ে বিশ্বে প্রতি ১৫ সেকেন্ডে গড়ে একজন করে মানুষ মারা যাচ্ছে বলে জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স। গত দুই সপ্তাহে বিশ্বজুড়ে করোনায় মোট মৃত্যু বিশ্লেষণ করে রয়টার্স এ তথ্য পেয়েছে।

রয়টার্সের হিসাব অনুযায়ী, গত দুই সপ্তাহ ধরে করোনায় গড়ে প্রতিদিন প্রায় ৫ হাজার ৯০০ মানুষের মৃত্যু হচ্ছে। এই হিসাবে করোনায় প্রতি ঘণ্টায় মারা যাচ্ছে ২৪৭ জন, প্রতি ১৫ সেকেন্ডে মৃত্যু হচ্ছে একজনের।

করোনায় বিশ্বের মৃতের সংখ্যা ৭ লাখ ছাড়িয়েছে। বিশ্বের দেশগুলোর মধ্যে করোনায় সবচেয়ে বেশি মারা গেছে যুক্তরাষ্ট্র, ব্রাজিল, মেক্সিকো. যুক্তরাজ্য এবং ভারতে। 

করোনার সার্বক্ষণিক তথ্য রাখা জন্স হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের (জেএইচইউ) তথ্য অনুযায়ী, বুধবার বিকেল পর্যন্ত সারাবিশ্বে ভাইরাসটিতে মারা গেছেন ৭ লাখ ১ হাজার ২৭ জন। 

এছাড়া বুধবার বিকেল পর্যন্ত বিশ্বজুড়ে ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা এক কোটি ৮৫ লাখ ৬০ হাজার ৬৩০ জন। আমেরিকার দুই মহাদেশ ও দক্ষিণ এশিয়ায় সংক্রমণ দ্রুত বাড়ছে। 

জন্স হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের (জেএইচইউ) তথ্য অনুযায়ী করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু ঘটেছে যুক্তরাষ্ট্রে। দেশটিতে বুধবার বিকেল পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা ৪৭ লাখ ৭১ হাজার। আর মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৫৬ হাজার ৮৩০ জন মানুষের।

করোনায় দ্বিতীয় সর্বোচ্চ আক্রান্ত ও মৃত্যু ব্রাজিলে। সেখানে ২৮ লাখ ১ হাজার ৯২১ জন মানুষ করোনায় আক্রান্ত এবং মারা গেছেন ৯৫ হাজার ৮১৯ জন। 

তৃতীয় সর্বোচ্চ আক্রান্ত দক্ষিণ এশিয়ার দেশ ভারতে। বুধবার বিকেল পর্যন্ত দেশটিতে আক্রান্তের সংখ্যা ১৯ লাখ ১৮। মৃত্যুর সংখ্যা কিছুটা কম ভারতে। মৃত্যুর দিক দিয়ে ভারত পঞ্চম স্থানে। সেখানে করোনায় মারা গেছেন ৩৯ হাজার ৭৯৫ জন।

করোনায় তৃতীয় সর্বোচ্চ মানুষ মারা গেছে মেক্সিকোতে। সেখানে এখন পর্যন্ত ৪৮ হাজার ৮৬৯ জন করোনায় মারা গেছেন। এছাড়া চতুর্থ সর্বোচ্চ মারা গেছে যুক্তরাজ্যে। বুধবার বিকেল পর্যন্ত দেশটিতে মৃতের সংখ্যা ৪৬ হাজার ২৯৫ জন।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীন থেকে সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর বিশ্বব্যাপী এ পর্যন্ত ১৮৮টি দেশে ছড়িয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। গত ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।