আজারবাইজানে প্রেসিডেন্টের সমালোচনা করায় পদ হারালেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশ: ১৭ জুলাই ২০২০   

অনলাইন ডেস্ক

ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

সীমান্ত সংঘর্ষ নিয়ে প্রেসিডেন্টের সমালোচনা করায় বরখাস্ত হয়েছেন আজারবাইজানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইলমার মামেদইয়াভ। তার স্থলাভিষিক্ত করা হয়েছে দেশটির শিক্ষামন্ত্রী যেইহুন বাইরামভকে। খবর পার্সটুডে’র।

গত কয়েক দিন ধরে সীমান্তে আর্মেনিয়ার সঙ্গে যে সংঘর্ষ চলছে, তাতে আজারবাইজানের অন্তত ৭ সেনা এবং আর্মেনিয়ার ৪ সেনা নিহত হয়েছেন। এছাড়া একজন বেসামরিক নাগরিকও নিহত হয়েছেন।

কারাবাখ পার্বত্যাঞ্চল নিয়ে সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নভুক্ত দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে ১৯৯০ সালের দিকে যুদ্ধ হয়েছিল। কারাবাখ অঞ্চল আজারবাইজানের অংশ হিসেবে আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত, তবে জাতিগত আর্মেনীয়রা ১৯৮০ সাল থেকে অঞ্চলটি নিয়ন্ত্রণ করে আসছে। ১৯৯৪ সালে অস্ত্রবিরতি চুক্তি স্বাক্ষরের আগ পর্যন্ত প্রায় ৩০ হাজার মানুষ নিহত হয়। এরপর থেকে আজারবাইজানের ভেতরের এই অঞ্চল আর্মেনিয়ার সেনা ও অর্থনৈতিক সমর্থনে পরিচালিত হয়ে আসছে। তবে নিয়মিতই এখানে দুপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ হয়।

গত ১২ জুলাই থেকে প্রতিবেশী আর্মেনিয়ার সঙ্গে সীমান্ত সংঘর্ষ নিয়ে আর্মেনিয়ার সঙ্গে প্রেসিডেন্ট আলিয়েভ আলোচনা শুরুর পর তার সমালোচনা করেন ইলমার মোহাম্মদ ইয়ারব। তিনি বলেছিলেন, ‘এই আলোচনা অর্থহীন।’

ইলমার মোহাম্মদ ইয়ারবকে বরখাস্ত করার আগে আলিয়েভ বলেন, ‘পররাষ্ট্রমন্ত্রী কী করছেন? গত ১২ জুলাই সংঘর্ষ শুরু হওয়ার পর থেকে আমরা সবাই কাজ করে যাচ্ছি, অথচ তাকে খুঁজে পাচ্ছি না।’

ইলহাম আলিয়েভ আরও বলেন, ‘দুর্ভাগ্যজনকভাবে আমাদের সাম্প্রতিক কূটনৈতিক তৎপরতা সফল হয়নি। অনেক ক্ষেত্রেই অর্থহীন কাজ, অর্থহীন আলোচনা হয়েছে।’