চঞ্চল চৌধুরী-সিয়াম আহমেদ এক সিনেমায়!  মনপুরার পর গিয়াস উদ্দিন সেলিম- চঞ্চল চৌধুরী আসছেন একসাথে। দীর্ঘ বিরতির পর রুপালি পর্দায় আফসানা মিমি। আছেন ফজলুর রহমান বাবু, মামুনুর রশীদসহ অনেক অভিনয়শিল্পী। এমন নানা চমক নিয়ে আসছে নাম 'পাপ-পুণ্য'। ইমপ্রেস টেলিফিল্মের এ সিনেমাটি মুক্তি পাচ্ছে কবে?

সংবাদ সম্মেলন করে এ প্রশ্নের উত্তর জানাল 'পাপ পুণ্য'টিম। জানানা হলে আগামী ২০ জুন মুক্তি পাচ্ছে ছবিটি।   প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান থেকে জানানো হয়, কানাডা ও আমেরিকার ১১২টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পেতে যাচ্ছে গিয়াস উদ্দিন সেলিমের ‘পাপপুণ্য’। এখন পর্যন্ত দেশের ৮টি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি নিশ্চিত হয়েছে, ২০ মে পর্যন্ত বাড়তে পারে আরও কিছু প্রেক্ষাগৃহ।

সিনেমাটির প্রযোজনা সংস্থা ইমপ্রেস টেলিফিল্মের পক্ষে অনুষ্ঠানে বিস্তারিত তুলে ধরেন চ্যানেল আইয়ের পরিচালক জহির উদ্দিন মাহমুদ মামুন। একইসঙ্গে এই অনুষ্ঠানে ‘পাপ পুণ্য’ দেখার জন্য বিশ্বের সব বাংলা ভাষাভাষী দর্শকদের প্রতি আহ্বান জানানো হয়।

‘পাপ পুণ্য’ দিয়ে ‘মনপুরা’র পর ফের সেলিমের পরিচালনায় সিনেমায় অভিনয় করলেন চঞ্চল চৌধুরী। সিনেমাটি নিয়ে এই অভিনেতা বলেন, ‘‘পাপপুণ্য’ দেখার পেছনে অনেকগুলো ফ্যাক্টর আছে। এটি গিয়াসউদ্দিন সেলিমের সিনেমা, সেই সঙ্গে এতে বেশ কয়েকজন গুণী অভিনেতা রয়েছেন। বিশেষ করে আফসানা মিমি। আপনারা সিনেমাটি দেখে নিরাশ হবেন না। পৃথিবীর বাংলা ভাষাভাষী দর্শকদেরকে ‘পাপপুণ্য’ দেখার আহ্বান জানাচ্ছি। ’’

সংবাদ সম্মেলনে দেখানো হয় ট্রেলার ও গান। সেখানে  গিয়াস উদ্দিন সেলিমের নির্মাণ মানেই সেলুয়েডে গ্রামীণ জনজীবনের চিরচেনা রেশ দেখা গেলো 

চিত্রনায়ক সিয়াম বলেন, ‘‘মনপুরা’ আমি আমার বাবা-মাকে নিয়ে দেখেছিলাম। তখন ছিলাম ছাত্র। সেই সিনেমার অভিনয়শিল্পী, সেই সিনেমার পরিচালকদের সঙ্গে কাজ করার অভিজ্ঞতা কতটা যে স্পেশাল, সেটা বোঝানো যাবে না। তাদের সঙ্গে কাজ করা কতটা সৌভাগ্যের, সেটা আসলেই বোঝানো যাবে না। ’’

‘পাপ পুণ্য’র হলে তালিকা প্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক পরিবেশক সংস্থা স্বপ্ন স্কেয়ার ক্রো। মুক্তির প্রতীক্ষায় থাকা এই সিনেমাটি উত্তর আমেরিকায় রেকর্ড সংখ্যক হল পাওয়ায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন সিনেমাটি সংশ্লিষ্ট সবাই। 

স্বপ্ন স্কেয়ার ক্রোর প্রধান নির্বাহী সৈকত সালাহ উদ্দিন বলেন,  কানাডা ও আমেরিকার ১২ লাখ বাংলাদেশি চাইলেই কাছের থিয়েটারে দেশের এই সিনেমাটি উপভোগ করতে পারবেন ।  আপাতত ১১২টি প্রেক্ষাগৃহ নিশ্চিত হয়েছে আরও বাড়তে পারে। 

‘পাপ-পুণ্য’তে চঞ্চল চৌধুরী অভিনয় করেছেন খোরশেদ চরিত্রে। আফসানা মিমি রয়েছেন পারুল চরিত্রে, আল-আমিন চরিত্রে সিয়াম আহমেদ এবং নবাগত শাহনাজ সুমিকে দেখা যাবে সাথী চরিত্রে।