নিজ গ্রামের অভাবি মানুষের পাশে দাঁড়ালেন ইমন

প্রকাশ: ২১ জুলাই ২০২০     আপডেট: ২১ জুলাই ২০২০   

বিনোদন প্রতিবেদক

চিত্রনায়ক ইমনের গ্রাম নরসিংদী জেলার পলাশ থানার সুলতানপুর। এই গ্রামের অভাবি মানুষের পাশে দাঁড়ালেন এ তারকা।  করোনার এই সময়ে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে সত্যিই তারকার পরিচয়। 

কাজের ব্যস্ততার দরুন গ্রামে খুব একটা যাওয়া হয়না। তবে এই করোনার সময়ে গ্রামে ফেরা হয়েছে তার। ফিরেই আবেগি হয়ে পড়েছেন। তাই এখন থেকে সুযোগ পেলেই তাই ছুটে যেতে চান গ্রামে। উদ্দেশ্য গ্রামের মানুষের সঙ্গে খানিকটা সময় কাটানো। 

গত সোমবার  এক প্রকার হুট করেই খাবার নিয়ে নিজের গ্রামে হাজির হন ইমন। গ্রামের মানুষের মধ্যে ঈদ উপহার বিলি করতেই এবারের যাওয়া। 

ইমন  সমকালকে বলেন, এটাকে আমি সাহায্য বলতে নারাজ। এটা আমার ভালোবাসার মানুষদের জন্য সামান্য ঈদ উপহার।  এ উপহার দেয়ার  অনেক কাছের মানুষ এগিয়ে এসেছেন। পাশে থেকে তারাসহায়তা করেছেন। তাদের প্রতি থাকবে কৃতজ্ঞতা। গ্রামে এসে একটা বিষয় উপলব্ধি হয়েছে এখানকার মানুষ সত্যিই খুব কষ্টে আছে। এই কষ্টের সময়ে তাদের পাশে দাঁড়াতে পেরে আমারও অন্য রকম অনুভূতি কাজ করছে। 

শুধু এই ঈদ উপহার দিয়েই প্রাণ ভরছেনা নায়কের। গ্রামের এই মানুষদের জন্য আরও বড় কিছু করার স্বপ্ন তার। সেটা সুযোগ হলে অবশ্যই করবেন বলে জানালেন এ নায়ক। ইমন বলেন, গ্রামের মানুষদের জন্য আরও বেশি করতে করার পরিকল্পনা আমার।  সবার আমার জন্য দোয়া করবেন। যেনো বড় কিছু করতে পারি।'

এদিকে করোনা ভাইরাসের কারণে ইমনের দুটি ছবির শুটিং আটকে আছে। বিষয়টি তাকে ভালো থাকতে দিচ্ছেনা।  একজন অভিনয়শিল্পী অভিনয় ছাড়া থাকতে পারেনা। ইমনও পারছেনা বলেই জানালেন। তাই ঈদের ভালো গল্পের কিছু নাটকে অভিনয় করছেন। 

নিজের গ্রামের অভাবি মানুষের পাশে দাঁড়ালেন ইমন ইমন জানান, নাট্যনির্মাতা সাজ্জাদ সুমন তাঁকে একটি গল্প শোনান। গল্প শুনে ভালো লেগে গেলে কাজ করতে রাজি হন ইমন।  এছাড়াও অনন্ত জলিলের নতুন একটি ছবিতে করোনাকালে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন তিনি।