পরিবেশ বিপর্যয়ের ঝুঁকি মোকাবেলায় বাংলাদেশের প্রস্তুতি বিশ্বের সেরা: ড. আইনুন নিশাত

প্রকাশ: ০৬ নভেম্বর ২০১৯   

অনলাইন ডেস্ক

ব্র্যাক ইউনিভার্সিটির প্রফেসর ইমেরিটাস ও জলবায়ু বিশেষজ্ঞ ড. আইনুন নিশাত বলেন, পরিবেশ বিপর্যয়ের ক্ষেত্রে উন্নত বিশ্বের খামখেয়ালির খেসারত দিতে হচ্ছে বাংলাদেশের। জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে সবচেয়ে ঝুঁকির মুখে রয়েছে বাংলাদেশ। তবে জোর দিয়েই বলা যায়, পরিবেশ বিপর্যয়ের ঝুঁকি মোকাবেলায় আমাদের প্রস্তুতি বিশ্বের সেরা। মঙ্গলবার মহাখালীর ব্র্যাক ইন এ অনুষ্ঠিত 'অ্যা কনভারসেশন উইথ বারবেল হুন, সোহারা মেহরোজ সাঁচী এন্ড ড. আইনুন নিশাত অন ক্লাইমেট জাস্টিস অ্যান্ড স্ক্রিনিং অফ দ্য ডকুমেন্টারি ২০৪০-দ্য রিজেনারেশন' শীর্ষক আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন তিনি।

বিশ্বব্যাপী ক্রমবর্ধমান বৈশ্বিক উঞ্চতার ফলে বাংলাদেশের প্রকৃতিতে পরিবর্তনের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, 'সময় বদলাচ্ছে, পরিবেশ বদলাচ্ছে, দুর্যোগের প্যাটার্ন বদলাচ্ছে। এই বছর তিস্তা, বহ্মপুত্র নদীর পানির উচ্চতা ইতিহাসের সবোর্চ্চ পর্যায়ে উঠেছিল। এই বছরই আবার তীব্র খরা দেখা যায় দেশের অন্য অঞ্চলগুলোতে।' জলবায়ু পরিবর্তনের ঝুঁকি মোকাবেলায় অভিযোজন ও প্রশমনের ওপর সমান জোর দেওয়ার আহ্বান জানান তিনি। সেই সঙ্গে দুর্যোগ ঝুঁকি মোকাবেলার সক্ষমতা বৃদ্ধি, ফান্ড তৈরি, উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহারের ওপর গুরুত্বারোপ করেন এই বিশেষজ্ঞ।

জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে স্বাস্থ্যঝুঁকি নিয়ে ড. আইনুন নিশাত বলেন, 'পরিবেশ বিপর্যয়ের ফলে নারী স্বাস্থ্যে নেতিবাচক প্রভাব পড়ছে। পানিতে লবণাক্ততা বাড়ায় দেশের উপকূলবর্তী নারীরা একলেমশিয়ায় ভুগছেন। অনেকের ক্ষেত্রে গর্ভধারণেও সমস্যা দেখা দিচ্ছে।' প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় বাংলাদেশ সফলতার পরিচয় দিচ্ছে বলে অভিমত প্রকাশ করেন এই জলবায়ু বিশেষজ্ঞ। বলেন, বাংলাদেশ পরিবেশগত ঝুঁকি মোকাবেলায় সব ধরনের প্রচেষ্টা অব্যাহত রেখেছে। তবে পর্যাপ্ত অর্থ সহায়তা না পেলে এই সাফল্য ধরে রাখা কঠিন হবে।

জার্মানির রাজনৈতিক দল গ্রিন পার্টির নেতা ও দেশটির সাবেক প্রতিমন্ত্রী বারবেল হুন বলেন, 'বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধির ৯০ শতাংশ ফল বহন করছে সাগর-মহাসাগরগুলো। তার সরাসরি প্রভাব পড়ছে মানবজাতির ওপর।' জাতিসংঘ উন্নয়ন কর্মসূচীর (ইউএনডিপি) রিসার্চ অ্যাসোসিয়েট সোহরা মেহরোজ সাঁচী বলেন, 'জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে পরিবেশ বিপর্যয় সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে হবে। তরুণদের এই কাজে সম্পৃক্ত করতে পারলে সফলতা পাওয়া যাবে।'

ব্র্যাক বিজনেস স্কুল ও দ্য সেন্টার ফর ক্লাইমেট চেঞ্জ অ্যান্ড এনভারেনমেন্টাল রিসার্চ যৌথভাবে আলোচনা সভাটির আয়োজন করে। অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন ব্র্যাক বিজনেস স্কুলের অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর ড. সেবাস্টিয়ান গ্রোহ। সংবাদ বিজ্ঞপ্তি